Sunday, February 28, 2021
Home আজকের ফতোয়া নিফাস অবস্থায় স্বামী ধৈর্য ধরতে না পারলে কী করবে? স্ত্রী দুধ মুখে...

নিফাস অবস্থায় স্বামী ধৈর্য ধরতে না পারলে কী করবে? স্ত্রী দুধ মুখে চলে আসলে করণীয় কী?

নিফাস অবস্থায় স্বামী ধৈর্য ধরতে না পারলে কী করবে? স্ত্রী দুধ মুখে চলে আসলে করণীয় কী?

 

মুফতি মাসউদুর রহমান ওবাইদী

প্রশ্নঃনিফাস অবস্থায় স্বামীর দীর্ঘদিন ধৈর্য ধারণ না করতে পারলে কি করবে?

স্ত্রীর স্তনের দুধ স্বামীর মুখে গেলে কি করণীয়?

বিজ্ঞাপনImage is not loaded

উত্তরঃ এক্ষেত্রে শুধুমাত্র যৌনাঙ্গ ছাড়া বাকি শরীরের মাধ্যমে যৌন সুখ নিতে পারবে।

স্ত্রীর স্তনের দুধ মুখে চলে আসলে ফেলে দিবে। গিলে ফেলা মাকরূহ। তবে পান করে ফেললেও দুগ্ধপানের হুরমত সাব্যস্ত হবে না।

فَيَجُوزُ الِاسْتِمْتَاعُ بِالسُّرَّةِ وَمَا فَوْقَهَا وَالرُّكْبَةِ وَمَا تَحْتَهَا وَلَوْ بِلَا حَائِلٍ، وَكَذَا بِمَا بَيْنَهُمَا بِحَائِلٍ بِغَيْرِ الْوَطْءِ وَلَوْ تَلَطَّخَ دَمًا، (رد المحتار، كتاب الطهارة، باب الحيض-1/486، البحر الرائق، باب الحيض-1/198، الهندية، الفصل الرابع فى احكام الحيض-1/39)

اعلم ان مباشرة الحائض على ثلاثة انواع احدها المباشرة فى الفرج بالوطئ وهو حرام بالنص والاجماع، والثانى المباشرة بما فوق السرة ودون الركبة باليد او الذكر وغيره وهو مباح بالاجماع، والثالث الاستمتاع بما بينهما خلا الفرج والدبر فمختلف فيما بين الائمة، وقال ابو حنيفة ومالك والشافعى رحمهم الله واكثر العلماء لا يجوز، (اوجز المسالك، باب ما يحل للرجل من امرأته وهى حائض-1/326، رد المحتار-1/486، الهندية-1/39

قوله تعالى- وَالْوَالِدَاتُ يُرْضِعْنَ أَوْلاَدَهُنَّ حَوْلَيْنِ كَامِلَيْنِ لِمَنْ أَرَادَ أَن يُتِمَّ الرَّضَاعَةَ (سورة البقرة-233

وفى رد المحتار-( ولم يبح الإرضاع بعد مدته ) لأنه جزء آدمي والانتفاع به لغير ضرورة حرام على الصحيح (الدر المختار مع رد المحتار-كتاب النكاح،  باب الرضاع-4/397

জনপ্রিয় খবর