শিখোবাংলায়.কম: বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ও নাস্তিক-মুরতাদ নির্মূল কমিটির সভাপতি মুফতি সুলতান মহিউদ্দিন বলেছেন, ফ্রান্স সরকার মহানবী হজরত মুহাম্মাদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম এর ব্যঙ্গচিত্র প্রচার করায় ফ্রান্সের বিরুদ্ধে বিশ্বের সকল মুসলমান ফুঁসে উঠেছে।

মুসলমানদের মধ্যে নবজাগরন সৃষ্টি হয়েছে। মুসলমানদের এ গণজাগরন দেখে নাস্তিক ও ইসলাম বিদ্ধেষীদের গাত্রদাহ শুরু হয়ে গেছে।

সকল নাস্তিকদের ঘুম হারাম হয়ে গেছে। ধর্মপ্রাণ নবীপ্রেমিক মুসলমান ও হেফাজতে ইসলামের বিরুদ্ধে শাহবাগে যারা মশাল মিছিল করেছে তারা ইহুদী-খৃষ্টানদের দালাল, ইসলাম ও মুসলমানদের দুশমন।

৯২ ভাগ মুসলমানদের দেশে যাদের ইসলাম ও মুসলমানদের সহ্য হয় না এ দেশে তাদের থাকার কোন অধিকার নেই। শনিবার (৭ নভেম্বর) সংবাদমাধ্যমে প্রেরিত এক বিবৃতিতে তিনি এসব কথা বলেন।

মুফতি মহিউদ্দিন বলেন, মুসলিম উম্মাহ এখন সচেতন, তারা জেগে উঠেছে। ইসলামের বিরুদ্ধে আগুন পূজারীদের কোন ষড়যন্ত্র মুসলমানরা বরদাশত করবে না। দেশি-বিদেশী সকল নাস্তিক ও ইসলাম বিদ্ধেষীদের এক সাথে দমন করা হবে।

তিনি বলেন, মুসলমানগণ যুগে যুগে ইসলামের জন্য সংগ্রাম করেছে, রক্ত দিয়েছে। আল্লাহ ও রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম এর শানে ধৃষ্টতা প্রদর্শনকারী নাস্তিক্যবাদীদের বিচারের দাবীতে সর্বস্তরের তৌহিদী জনতা প্রয়োজনে জীবন দিতে প্রস্তুত রয়েছে।

এ ধর্মীয় চেতনার বিরুদ্ধে যারা ষড়যন্ত্র করবে তাদেরকে উচিৎ শিক্ষা দেওয়া হবে, ইন-শা আল্লাহ।