আজান নিষিদ্ধের মামলায় জার্মানিতে মুসলমানদের জয়

24

শিখো বাংলায়: জার্মানির উত্তরাঞ্চলীয় প্রদেশ রাইন-ওয়েস্টফালিয়ায় আজান নিষিদ্ধের এক মামলায় মুসলিমরা জয় লাভ করেছেন। ফলে দীর্ঘ পাঁচ বছর পর মাইকে আজান দেওয়ার সুযোগ পেল জার্মানিতে বসবাসরত তুর্কি বংশোদ্ভূতদের ওই এলাকা।

জানা গেছে, রাইন-ওয়েস্টফালিয়া এলাকার একজন স্থানীয় অমুসলিম ২০১৫ সালে শব্দ করে আজান দেয়ার বিরুদ্ধে আবেদন করেন। তার সেই আবেদনের পর শব্দ করে আজান নিষিদ্ধ হয়ে যায়। তবে শুক্রবার জুম্মার নামাজের সময় ১৫ মিনিটের মধ্যে সব মসজিদের আজান শেষ করার অনুমতি দেয়া হয়। ৫ বছর পর এবার সে আবেদন খারিজ করে দিয়েছেন দেশটির আদালত।

বুধবার (২৩ সেপ্টেম্বর) জার্মানির ওরে-এরকেনসচিক প্রদেশের একটি আদালত এ রায় দেন। এর ফলে ওই অঞ্চলে মাইকে শব্দ করে আজান দিতে আর কোনো বাধা নেই।

রায়ে আদালত বলেন, ‘প্রত্যেক জাতি বা সম্প্রদায়কেই অন্য জাতি বা সম্প্রদায়ের ধর্মীয় কার্যক্রম এবং প্রার্থনার সময় পূর্ণ স্বাধীনতা দিতে হবে। এবং কিছু বিষয় নিজে থেকেই মেনে নিতে হবে। যতদিন পর্যন্ত কেউ কাউকে নিজের ধর্ম পালনে বাধ্য করবে না, ততদিন পর্যন্ত এ ধরনের অভিযোগ অগ্রহণযোগ্য।’

রায়ের প্রতিক্রিয়ায় মসজিদের পাশে বসবাস করা এক দম্পতি জানান, উচ্চ স্বরে আজান তাদের ধর্মীয় স্বাধীনতা ক্ষুন্ন করছে। তাদের ওই আবেদন আদালত অযৌক্তিক উল্লেখ করে বাতিল করে দেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here